গরিব লোকটি খাচ্ছে

a-poor-mans-plight-marsha-elliott

যদি চিত্রশিল্পী হতাম আমি নিশ্চিত এই কবিতার শিরোনামই হতো আমার সিগনেচার থিম। স্বেচ্ছাচারী সূর্যটা দৌড়ে ঠিক মাথার উপরে গিয়ে দাঁড়ায় যেন সে প্রাচ্যের কোনো এক স্বৈরাচার। গরিব লোকটি হাঁটু গেড়ে তোষামোদের ভঙ্গিতে অনুকরণ করে টমি হিলফিগারের পুরনো কাপড় খণ্ডে একটি ন্যাংটো গাছের মৃতপ্রায় ছায়ার তলে। সে হাতে আগলে আছে পোড়া মাটির একটি বোল— বোলটা কোনো …

কোলরিজের কবিতা: বুড়ো নাবিকের গান (পঞ্চমাংশ)

Tiger-Lillies

প্রথম পর্ব।। দ্বিতীয় পর্ব।। তৃতীয় পর্ব।।চতুর্থ পর্ব আহ ঘুম! একটা প্রশান্তির জিনিস, উত্তর থেকে দক্ষিণ মেরু, সবাই তাঁকে ভালোবাসে! সকল প্রশংসা ঐ মেরি কুইনের জন্যে! সেই তো স্বর্গ থেকে পাঠিয়েছে এমন প্রশান্তির ঘুম, যে ঘুম পিছলে ঢুকে পড়েছে আমার আত্মার অভ্যন্তরে। ডেকের উপর খালি পাত্র গুলো, অনেকক্ষণ ধরে এমনিই পড়ে ছিলো, স্বপ্নে দেখলাম, পাত্র গুলো …

জেমস জয়েসের গল্পঃ এভেলিন

maxresdefault (1)

জানালার ধারে বসে সে দেখছিলো এভিনিউতে সন্ধ্যা নামার দৃশ্যটা। তার মাথাটা ঝুঁকে ছিলো জানালার পর্দাগুলোর দিকে, আর তার নাকে লেগে ছিলো ধুলায় মলিন কাপড়ের গন্ধ। সে ছিলো ক্লান্ত। কয়েকটা লোক অতিক্রম করে গেলো। সর্বশেষ কুঠি থেকে বের হওয়া লোকটাও রওনা দিলো বাড়ির দিকে। শান বাঁধানো রাস্তায় হেঁটে চলা লোকটার পায়ের খটখট আওয়াজ ভেসে আসছিলো তার …

চোখের সামনেই ঘটছে বিবর্তন! (শেষ পর্ব)

8

পর্ব ১ঃ এখান থেকে পড়তে পারেন। পর্ব ২ঃ পড়তে পারেন এখান থেকে। পর্ব ৩ঃ পড়তে পারেন এখান থেকে। গবেষণায় দেখা গেছে, যখন ব্যাকটেরিয়াকে আলাদা আলাদা পরিবেশে আটকে রাখা হয়, তখন তারা মাঝে মধ্যে কিছু অপকারী জেনেটিক মিউটেশনকে গ্রহণ করে। সেগুলো বংশ পরম্পরায় প্রবাহিত হতে থাকে এবং প্রজন্মের পর প্রজন্ম ধরে ব্যাকটেরিয়া প্রজাতিকে ক্ষতিগ্রস্ত করতে থাকে। …

চোখের সামনেই ঘটছে বিবর্তন! (পর্ব ৩)

মাঝের Ara-3 নামক পপুলেশনটাকে ঘোলাটে দেখাচ্ছে, কারণ এরা সাইট্রেটকে গ্রোথ মিডিয়াম হিসেবে ব্যবহার করতে শিখেছে

পর্ব ১ঃ এখান থেকে পড়তে পারেন। পর্ব ২ঃ পড়তে পারেন এখান থেকে। গত পর্বে বলেছিলাম, ৩১,৫০০ প্রজন্মে এসে Cit+ মিউট্যান্ট জন্মানোর হার এতই বেড়ে গেলো যে, তারা ঐ মিডিয়ামের একটা strain বাদে বাকি সব strain-এর ব্যাকটেরিয়াকে সংখ্যার দিক দিয়ে ছাড়িয়ে গেলো। এখন কথা হলো, কেন তারা একটা নির্দিষ্ট strain-কে ছাড়িয়ে যেতে পারেনি? পারেনি কারণ ঐ strain-এর ব্যাকটেরিয়াগুলো নিজেরা …

কোলরিজের কবিতা: বুড়ো নাবিকের গান (চতুর্থাংশ)

78576509.vFrKwBa8.GhostShip

প্রথম পর্ব।। দ্বিতীয় পর্ব।। তৃতীয় পর্ব ‘তোমাকে আমার ভয় করে, বুড়ো নাবিক! ভয় করে তোমার ঐ হাড্ডিসার হাত! তোমার সরু, ক্ষীণ আর বাদামী দেহ ঠিক যেন সাগরের বুকে ভেসে উঠা সরু চর। তোমাকে আমার ভয় করে, ভয় করে তোমার চকচকে চোখ, তোমার হাড্ডিসার অতি বাদামী হাত।’— ভয় নেই, ভয় পেওনা, হে বিয়ের-অতিথি এ দেহটা এখনো …

কোলরিজের কবিতা: বুড়ো নাবিকের গান (তৃতীয়াংশ)

caleuche

|| প্রথম পর্ব || || দ্বিতীয় পর্ব || একটা ক্লান্ত সময় পার হচ্ছিলো। প্রতিটা কণ্ঠনালী শুকিয়ে হয়েছিলো কাঠ, চকচক করছিলো প্রতিটা চক্ষু, একটা ক্লান্ত সময়! একটা ক্লান্ত সময়! কিভাবে চকচক করছিলো প্রতিটা ক্লান্ত চোখ, যখন চোখ রাখলাম পশ্চিমাভিমুখে, দেখলাম কিছু একটা নড়ছে আসমানে। প্রথমে মনে হলো যেন একটা ছোট্ট কণা, পরে মনে হলো এক খণ্ড কুয়াশা; এটা …

কোলরিজের কবিতা: বুড়ো নাবিকের গান (দ্বিতীয়াংশ)

51ac9b026a96a006ce92c2d469d589b9

প্রথমাংশের পর সূর্যটা এখন উদিত হলো ডান দিকটায়, যেন সাগরের নিচ থেকে ভেসে উঠলো, এখনো কুয়াশায় লুকিয়ে আছে, বাঁ দিকটায়, ডুব দিলো সাগরে। এবং এখনো সুন্দর দখিনা বাতাস বয়ে চলছে পেছনে, কিন্তু এবার কোনো সুন্দর পাখি আমাদের পিছু নেয়নি, না কোনো পাখি এসেছিলো খেতে অথবা খেলতে নাবিকের কামরায়! এবং আমি একটা পাপিষ্ঠ কাজ করে বসেছি, …

কোলরিজের কবিতা: বুড়ো নাবিকের গান (প্রথমাংশ)

12825744._SY540_

ভূমিকা ইংরেজ রোমান্টিক কবি স্যামুয়েল টেইলর কোলরিজ তাঁর এই কবিতা “দ্যা রাইম অব দ্যা এইনশানট মেরিনার” এর জন্য সুবিখ্যাত। কবিতাটা মূলত কাহিনী নির্ভর। প্রশান্ত মহাসাগরে প্রচণ্ড ঝড়ের কবলে পড়ে, অদ্ভুত সব ঘটনা আর এডবেঞ্চারের পর কিভাবে মধ্য দিয়ে বৃদ্ধ নাবিক দেশে ফিরে আসে সেই লোমহর্ষক ভূতুড়ে কাহিনী বুড়ো লোকটি মানুষকে ধরে বসিয়ে শোনায়। একবার, দুইবার, …

জেমস জয়েসের গল্পঃ এরাবি

02. Onubadok

নর্থ রিচমণ্ড সড়কটা একটা নিঝুম কানা গলি। শুধুমাত্র ক্রিশ্চিয়ান ব্রাদার্স স্কুলের ছুটির সময়টায় কিছুক্ষণের জন্য কোলাহলে জেগে উঠতো, তারপর আবার ডুবে যেতো নির্জনতায়। গলির কানা মাথায় এক খণ্ড চৌকো জমিতে দাঁড়িয়ে ছিলো একটা দোতলা বিচ্ছিন্ন বাড়ি, পরিত্যক্ত। নিজেদের ভেতরের বাস করা আভিজাত্যে সজাগ বাদ বাকি বাড়িগুলো বাদামি শান্ত চেহারা নিয়ে একে অন্যের দিকে পলকহীন চোখে …